কলকাতা যেতে বাংলাদেশিদের জন্য নতুন বিধিনিষেধ

বাংলাদেশ থেকে আকাশপথে ভারতের কলকাতাগামী যাত্রীদের জন্য নতুন ভ্রমণ বিধিনিষেধ আরোপ করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। নতুন বিধিনিষেধ অনুযায়ী, বাংলাদেশি যাত্রীদের কলকাতা যাওয়ার পর দেশটির বিমানবন্দরে নতুন করে করোনার র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট করাতে হবে। আর এজন্য খরচ হবে প্রায় ৭ মার্কিন ডলার। শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) থেকে এই বিধিনিষেধ কার্যকর করা হবে।

বাংলাদেশের এয়ারলাইন্সগুলোকে পাঠানো এক চিঠিতে ভারতের সিভিল এভিয়েশন জানায়, করোনার ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট প্রতিরোধে নতুন এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ঢাকা থেকে কলকাতাগামী যাত্রীদের এয়ারলাইন্সের বোর্ডিং পাস ইস্যুর আগে বিমানবন্দরে ভ্রমণ বিধিনিষেধ অনুযায়ী সবধরনের কাগজপত্র আছে কি না তা দেখে নেওয়ার অনুরোধ করা যাচ্ছে।

নতুন বিধিনিষেধে কলকাতা যেতে কী লাগবে

· কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের পূর্ণাঙ্গ ডোজ দেওয়ার সার্টিফিকেট।

· ভ্রমণের ৭২ ঘণ্টা আগে কোভিড-১৯ আরটি পিসিআর টেস্ট করে নেগেটিভ রিপোর্ট।

· কলকাতা রওনা হওয়ার আগে ভারতের ‘এয়ার সুবিধা পোর্টাল’-এ গিয়ে সেলফ-রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। পোর্টালে পিসিআর টেস্টের নেগেটিভ রিপোর্ট এবং কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন সার্টিফিকেটের স্ক্যান কপি আপলোড করে ভ্রমণ সংক্রান্ত কিছু তথ্য দিতে হবে।

· কলকাতা বিমানবন্দরে পৌঁছে যাত্রীদের নিজ খরচে কোভিড-১৯ এর ‘র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট’ করাতে হবে। টেস্টের জন্য বাংলাদেশ থেকে ফ্লাইটে ওঠার আগেই রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।

· কলকাতা থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হওয়ার ৭২ ঘণ্টা আগে যাত্রীদের কোভিড-১৯ আরটি পিসিআর টেস্ট করাতে হবে। তবে ১০ বছরের নিচের শিশুদের জন্য টেস্ট করার প্রয়োজন নেই।

এয়ার বাবল চুক্তির আওতায় ভারতের বিভিন্ন রুটে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স, ইন্ডিগো, গো এয়ার, স্পাইস জেট, ভিস্তারা ও এয়ার ইন্ডিয়া ফ্লাইট পরিচালনা করছে।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!