ঘুরে আসতে পারেন ইন্ডিয়ার চমৎকার ৭ জায়গা

একইসঙ্গে বিভিন্ন ঋতুর দেখা মেলে ভারতে। রাজস্থানের মতো জায়গায় যখন তীব্র গরম তখন উত্তরের রাজ্যগুলোতে যেমন জাম্মু এবং কাশ্মীরে তীব্র শীত। প্রকৃতির এই মনোরম বৈচিত্রময়তা অনুভব করতে চাইলে ঘুরে আসতে পারেন প্রতিবেশি দেশ ভারতের কয়েকটি সুন্দর জায়গা থেকে। এই শীতের ছুটিতে তুষারে ঢাকা পর্বত-মালা, কুয়াশায় মোড়ানো লেক হতে পারে ভ্রমনপিপাসুদের ঘুরে আসার জন্য চমৎকার। জানুয়ারি থেকে মার্চের মধ্যে শীতের ছুটিতে ঘুরে আসতে পারেন ভারতের এই ৭ স্থান থেকে-

রাজস্থান

রাজস্থানের সৌন্দর্য বর্ণনা করা প্রায় অসম্ভব। এই রাজ্য সুন্দর স্থাপত্য এবং সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের দিক দিয়ে সবচেয়ে এগিয়ে। রাজ্যের প্রতিটি শহরই বেশ সুন্দর। উদয়পুরে রয়েছে মনোরম হ্রদ, সেখানে জয়সালমিরের সোনালি মরুভূমিও বেশ আকর্ষণীয়। যেহেতু গ্রীষ্মকালে রাজ্যের তাপমাত্রা খুব বেশি থাকে, তাই শীতকাল এটি ভ্রমণের জন্য ভালো। এখানে যোধপুর, জয়পুর এবং উদয়পুরের দুর্গ্ ও প্রাসাদের জাঁকজমক সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারবেন। সেইসঙ্গে জয়সালমেরে মরুভূমিতে ক্যাম্পিং এবং পুশকরে হট এয়ার বেলুন রাইডও উপভোগ করতে পারবেন।

আন্দামান

যারা পাহাড়ের চেয়ে সমুদ্র দেখতে বেশি ভালোবাসেন তাদের জন্য আন্দামান হবে উপযুক্ত গন্তব্য। সৈকতে বসে অলস সময় কাটাতে কাটাতে গায়ে মাখাতে পারবেন ফুরফুরে হাওয়া। যেহেতু আন্দামান গ্রীষ্মমন্ডলীয় প্রকৃতির, এটি গ্রীষ্মে খুব গরম এবং আর্দ্র থাকে, তাই  শীতের মাসগুলোই এই দ্বীপটি দেখার সেরা সময়। অসংখ্য ওয়াটার স্পোর্টস এবং আলোক প্রদর্শনী পর্যটকদের আকর্ষণ আরও বাড়িয়ে দেয়।

কেরালা

শীতকালে ভারতের আরেকটি পর্যটন আকর্ষণ হলো কেরালা। যারা পানি ভালোবাসেন তাদের জন্য রয়েছে সৈকত, যারা অবসর ভালোবাসেন তাদের রয়েছে জন্য স্বস্তিদায়ক ব্যাক ওয়াটার, প্রকৃতিপ্রেমীদের জন্য বন্যপ্রাণির অভয়ারণ্য, সাফারি ও দর্শনীয় পাহাড়ও রয়েছে। নভেম্বর থেকে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত শীতের মাসগুলো কেরালা দেখার সেরা সময়। এখানে আরো পাবেন হাউসবোটে রাইড, সবুজের মাঝে চা বাগানে হাঁটার সুযোগ এবং ব্যাক ওয়াটারে হাউসবোট বা শিকারা রাইড। কেরালায় গেলে কথাকলি নাচের পারফরম্যান্স দেখতে ভুলবেন না।

কচ্ছের রণ

সাদা বালির মরুভূমির জন্য এটি ভারতে বেশ বিখ্যাত। শীতের মাসগুলো এই স্থান ভ্রমণের সেরা সময়, রণ উৎসবও বেশ উপভোগ করার মতো, যা অক্টোবর থেকে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত হয়ে থাকে। উৎসবটির স্থানীয় খাবার বেশ মজার এবং কেনাকাটার জন্যও এটি সেরা। তারাময় রাতে উটের যাত্রা অভিজ্ঞতা অর্জনের মতো একটি ব্যপার।

পন্ডিচেরি

পন্ডিচেরি ছিল সৈকত দ্বারা বেষ্টিত ফ্রান্সের উপনিবেশ। শীতে ভারত ভ্রমণের জন্য এটি একটি সুন্দর জায়গা। ভোরের রোদে সৈকতে পা ভিজিয়ে ঘুরে বেড়ানো কিংবা ককটেলে চুমুক দিয়ে শীতের অলস দিন কাটানোর জন্য এটি সুন্দর জায়গা। শহরের সুন্দর ক্যাফে এবং রেস্তোঁরাগুলো থেকেও ঘুরে আসতে পারেন। প্রকৃতির শান্ত পরিবেশ উপভোগ করতে চাইলে ঘুরে আসতে পারেন অরোভিলে থেকেও।

মেঘালয়

মেঘালয় প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর উত্তর পূর্বের একটি রাজ্য। মেঘালয় প্রাচীন সব জলপ্রপাত, লেক এবং নদীতে ঘেরা একটি রাজ্য। মেঘালয়ের সবুজ মনোরম পরিবেশ সবসময়ই পর্যটকদের আকর্ষণ করে। মেঘালয়ে গেলে শিলং-এ ঘুরতে, চেরীপুঞ্জির লাইভিং রুট ব্রিজে হাইকিং এবং ডাউকির সুন্দর স্বচ্ছ পানিতে নৌকা নিয়ে ঘুরতে কখনোই ভুলবেন না।

কর্ণাটক

কর্ণাটক উপকূলে ঘেরা এমন একটি রাজ্য যা বর্ষাকালে পানিতে ভরপুর থাকে। শীতকাল এই জায়গা থেকে ঘুরে আসার সবচেয়ে ভালো একটি সময়। কর্ণাটকে গেলে হামপি থেকেও ঘুরে আসতে পারেন এটি ইউনেস্কোর ঐতিহ্যবাহী স্থানগুলোর মধ্যে একটি। এছাড়াও ঘুরে আসতে পারেন গোকানা, মাল্পে, মুরুদেশশারের বিচগুলোতেও। সেইসঙ্গে উপভোগ করতে পারেন এখানকার মজাদার সামুদ্রিক খাবার।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!