এবছর হজ করতে পারবেন ১০ লাখ মুসলিম

দীর্ঘ দুই বছর করোনা মহামারির কারণে স্থগিত রাখার পর বিদেশি হজযাত্রীদের জন্য পুনরায় সীমান্ত খুলছে সৌদি আরব। চলতি ২০২২ সালে ১০ লাখ হজযাত্রীকে জন্য সৌদিতে প্রবেশের অনুমতি দেবে দেশটির সরকার।

হজযাত্রীদের বয়স অবশ্যই ৬৫ বছরের নিচে হতে হবে এবং সৌদি আরবের টিকাদান কর্মসূচিতে যেসব টিকা ব্যাবহারের অনুমতি দিয়েছে দেশটির সরকার, সেগুলোর কোনো একটির দুই ডোজ সম্পূর্ণ করার সনদ সঙ্গে রাখতে হবে।

এছাড়া অনুমোদিত যাত্রীদেরকে অবশ্যই সৌদি আরবের উদ্দেশে বিমানে ওঠার অন্তত ৭২ ঘণ্টা আগে করোনা টেস্ট করাতে হবে এবং সেই টেস্টে নেগেটিভ সনদ পাওয়াদেরকেই কেবল প্রবেশ করতে দেওয়া হবে সৌদি আরবে।

সৌদি সরকারের হজ্জ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়ের বিবৃতির বরাত দিয়ে শনিবার এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানিয়েছে সৌদি দৈনিক আরব নিউজ। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে ইতোমধ্যে টুইট করা হয়েছে মন্ত্রণালয়ের বিবৃতি।

২০২০ সালে মহামারির প্রথম বছর দেশ-বিদেশি কোনো ব্যক্তিকে হজের অনুমতি দেয়নি সৌদি সরাকর। পরের বছর ২০২১ সালে কেবল সৌদি আরবের নাগরিক ও দেশটিতে অবস্থানরত মুসল্লিদের হজ পালনের অনুমতি দেওয়া হয়। সরকারি তথ্য অনুযায়ী, গত বছর ৫৮ হাজার ৭৪৫ জন মানুষ হজ করেছেন সৌদিতে। মহামারির আগের বছরে হাজির সংখ্যা ২০ লাখ ছাড়িয়ে যেত।

মন্ত্রণালয় সর্বশেষ বিবৃতিতে বলেছে, সর্বোচ্চসংখ্যক হজযাত্রীকে হজ পালন এবং মসজিদে নববী পরিদর্শনের সুযোগ দিতে আগ্রহী সৌদি আরব। একই সঙ্গে তাদের স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা সুরক্ষা দেওয়াও সরকারে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!